অমল বর্মন

এটি আমার ব্যক্তিগত পৃষ্ঠা। খুবই ব্যক্তিগত। এটি লিনাক্স সিস্টেমগুলি পরীক্ষা করার জন্য ডিজাইন করা হয়েছে। ব্যক্তিগতভাবে আমি লিনাক্স সিস্টেমের খুবই বড় অনুরাগী এবং গত বিশ বছর বা তারও বেশি সময় ধরে এটি জনপ্রিয় করার জন্য প্রচুর প্রচেষ্টা করেছি। রেডহ্যাট লিনাক্স ৪.০ দিয়ে শুরু এবং এখন ফেডোরা ৩২ এর উপর কাজ করছি। এই সময়ে লিনাক্স এবং মাইক্রোসফ্ট উইন্ডোজ উভয়ের কয়েক শ সিস্টেম ইনস্টল করেছি তবে লিনাক্স আমার প্রথম পছন্দ। তবে আমি জানি না কেন! প্রতিদিনই এবং প্রতিটি সময়ে নতুন নতুন বৈশিষ্ট্যগুলি শিখেছি। বলা যেতে পারে প্রতিটি ইনস্টলেশনেই একটি নতুন জিনিস শিখেছি!

আজকাল টর-ব্রাউজার, ওয়েব-হোস্টিং এবং সাবভার্সন নিয়ে পরীক্ষা নিরীক্ষা করছি এবং রাস্পবেরি পাই ৪ বা ৩ বি + সিস্টেমে এই সমস্ত জিনিস গুলো পরীক্ষা করে দেখছি।

নিম্নলিখিত সিস্টেম গুলো আমার পছন্দের:

১। ভার্চুয়ালবক্স, কিমু এবং এলএক্সসির সাথে ভার্চুয়ালাইজেশন
২। ফেডোরার সংস্করণ (মেট), এক্সডিএমসিপি
৩। ওয়েব হোস্টিং এবং ওয়েব পরিষেবাদির জন্য সিস্টেম প্রশাসন
৪। পোস্টগ্রিজ এসকিউএল
৫। এসজিএমএল, ল্যাটেক্স এবং এম ৪
৬। ওপেনএমপিআই / এমপিআইসিএইচ
৭। সি / সি ++ প্রোগ্রামিং
৮। নাজিওস

আমি বোধহয় খুবই বিরক্তিকর এবং অন্তর্মুখী প্রকৃতির ! আসলে এই সাইটটি এমন সময়ে বিকাশ করছি, যখন নভেল করোনার ভাইরাসজনিত কারণে দেশে ২১ দিনের লক-ডাউন চলছে আর আমি এই সাইটটি তৈরীতে ব্যস্ত। লক-ডাউন আমাকে অসামাজিক করতে অক্ষম এবং সামাজিক দূরত্ব আমার কাছে ইস্যু নয়!

আমি বাংলা এবং ইংরেজি গান এবং জীবনানন্দ দাশের কবিতা পছন্দ করি। প্রিয় পছন্দের জীবনানন্দ দাশের একটি কবিতা সংযুক্ত করছি এখানে যেটা হয়তো আপনারও পছন্দের হবে।

বাংলার মুখ আমি দেখিয়াছি, তাই আমি পৃথিবীর রূপAmal Barman
খুঁজিতে যাই না আর : অন্ধকারে জেগে উঠে ডুমুরের গাছে
চেয়ে দেখি ছাতার মতন বড়ো পাতাটির নিচে বসে আছে
ভোরের দোয়েলপাখি — চারিদিকে চেয়ে দেখি পল্লবের স্তূপ
জাম — বট — কাঠালের — হিজলের — অশ্বত্থের করে আছে চুপ;
ফণীমনসার ঝোপে শটিবনে তাহাদের ছায়া পড়িয়াছে;
মধুকর ডিঙা থেকে না জানি সে কবে চাঁদ চম্পার কাছে
এমনই হিজল — বট — তমালের নীল ছায়া বাংলার অপরূপ রূপ

দেখেছিল; বেহুলার একদিন গাঙুড়ের জলে ভেলা নিয়ে —
কৃষ্ণা দ্বাদশীর জোৎস্না যখন মরিয়া গেছে নদীর চরায় —
সোনালি ধানের পাশে অসংখ্য অশ্বত্থ বট দেখেছিল, হায়,
শ্যামার নরম গান শুনেছিলো — একদিন অমরায় গিয়ে
ছিন্ন খঞ্জনার মতো যখন সে নেচেছিলো ইন্দ্রের সভায়
বাংলার নদী মাঠ ভাঁটফুল ঘুঙুরের মতো তার কেঁদেছিলো পায়।

More | Deep Website (V2): amal3mps5fks3z5h.onion | (V3): j5v4cyjsiapnrconuxdtfyvbuoux34vmjjlycyzcyop2qrd5qtzhmrqd.onion

amal[dot]barman[@]yahoo[dot]com     |    ১৪ চৈত্র ১৪২৬ শনিবার ২৮ মার্চ ২০২০ |